এইমাত্র পাওয়া

শিবগঞ্জ সীমান্তে বিএসএফের গুলিতে বাংলাদেশী গরু ব্যবসায়ী নিহত

চাঁপাইনবাবগঞ্জ প্রতিনিধিঃ চাঁপাইনবাবগঞ্জের শিবগঞ্জ সীমান্তে বিএসএফের গুলিতে বাংলাদেশী এক গরু ব্যবসায়ী নিহত হয়েছে বলে অভিযোগ উঠেছে। নিহত ব্যক্তি উপজেলার মনাকষা ইউনিয়নাধীন পারচৌকা গ্রামের আব্দুল হামিদের ছেলে জেম আলি (৩০)।

ঘটনাটি ঘটেছে সিংনগর সীমান্তে ১৭৪/১৪ এস নং পিলার এলাকায়। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক এলাকার কয়েকজন জানান, নিহত জেম সোমবার ভোররাতে একদল চোরাকারবারী নিয়ে সিংনগর সীমান্তের ১৭৪/১৪ এস নং পিলার এলাকা দিয়ে চোরাইপথে গরু আনতে গেলে ভারতের ১৮০ বিএসএফ ব্যাটালিয়নের অধিনস্ত দৌলতপুর ক্যাম্পের বিএসএফ তাকে লক্ষ্য করে গুলি করলে সে ঘটনাস্থলে মারা যায়।

এ সময় তার সঙ্গীরা তার লাশ নিয়ে পালিয়ে আসে। নিহতের চাচা এরফান আলি জানান, সকালে জানতে পারি যে কে বা কারা জেমের পিতা আব্দুল হামিদের বাড়ির পিছনে জেমের লাশ ফেলে গেছে। তিনি আরো জানান এ পর্যন্ত মনাকষা ও চৌকা বিওপির বিজিবির সদস্যরা এবং ডিএসবি পুলিশ নিহতের বাড়িতে এসে খোঁজ খবর নিয়েছেন।

এব্যাপারে মনাকষা ইউপি চেয়ারম্যান মির্জা শাহাদাৎ হোসেন খুররম বলেন, আমার কোন মন্তব্য নেই। নিহতের বাড়িতে ৫৩ ব্যাটালিয়নের টু আইসিসহ বিজিবির একটি দল এসেছেন তাই তার সঙ্গে আমি এসেছি।

তবে সংশ্লিষ্ট ইউপি সদস্য সাদিকুল ইসলাম ঘটনার সত্যতা নিশ্চিত করেন। এব্যাপারে ৫৩ ব্যাটালিয়নের অধিনায়ক সাজ্জাদ সারওয়ার সাথে যোগাযোগের জন্য বার বার চেষ্টা করেও তিনি ফোন রিসিভ না করায় যোগযোগ করা সম্বব হয়নি।

অন্যদিকে মনাকষা ও সিংনগর বিওপি কমান্ডার আব্দুল মতিন ও মিজানুর রহমানের সাথে যোগাযোগ করা হলে ব্যস্ত আছি বলে ফোন কেটে দেন। লাশ থানা পুলিশ উদ্ধার করবে কি না এমন প্রশ্নের জবাবে শিবগঞ্জ থানার ওসি সিকদার মোহাম্মদ মশিউর রহমান জানান প্রয়োজন নেই।

চাঁপাইনবাবগঞ্জ প্রতিনিধি, দীর্ঘদিন থেকে সাংবাদিকতা পেশার সাথে জড়িয়ে আছেন। বস্তুনিষ্ঠ সংবাদ প্রকাশই তাঁর লক্ষ্য এবং এ বিষয়ে তিনি অনেক সচেতন।

সর্বশেষ তালাশ

অপরাধ জগত