এইমাত্র পাওয়া

সিলিকন ভ্যালীতে বাংলাদেশী প্রযুক্তিবিদদের সংখ্যা বাড়ছে

যুক্তরাষ্ট্রের সান ফ্রান্সিসকোর সিলিকন ভ্যালীতে অবস্থিত বিশ্বের সর্ববৃহৎ প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠানগুলোতে সারা বিশ্বের সবচেয়ে মেধাবী প্রযুক্তিবিদরা কাজ করেন। আর তাদের মধ্যে অনেক বাংলাদেশী প্রযুক্তিবিদও রয়েছেন।

সিলিকন ভ্যালিতে ভয়েস অব আমেরিকা’র প্রতিনিধি সেলিম হোসেন কয়েকজনের সঙ্গে কথা বলে যে প্রতিবেদন তৈরী করেছেন তা তুলে ধরা হলো।

ড. বদরুল মনির সারওয়ার। বিশ্বের জৈষ্ঠতম সামাজিক যোগাযোগ সৃষ্টিকারী প্রতিষ্ঠান লিংকডিনের আর্টিফিশ্য়াল ইন্টেলিজেন্স বিশেষজ্ঞ। কেমন লাগে এই কাজ- এমন প্রশ্ন সহ নানা প্রশ্নের জবাব দেন তিনি। সেই সঙ্গে বাংলাদেশের তরুনদের সম্ভাবনার নানা দিক নিয়েও কথা বলেন ড. বদরুল মনির সারওয়ার।

বঙ্গবন্ধু স্যাটেলাইট উৎক্ষেপন নিয়ে মন্তব্য করতে গিয়ে ড. বদরুল বলেন, এর সর্বোচ্চ ব্যবহার নিশ্চিত করাই এখন মূল কাজ হওয়া উচিত।

ড. মনসুরুল ভুঁইয়া আইবিএমের গবেষনা বিজ্ঞানী। আইবিএমের বিজ্ঞানী হবার গল্প শোনাতে গিয়ে জানালেন, বাংলাদেশ ও বাংলাদেশী-আমেরিকান তরুনদের নিয়ে অনেক আশা আর স্বপ্নের কথা।

ড. ইফফাত কাজী ইন্টেলের বিজ্ঞানী। যুক্তরাষ্ট্রে পিএইচডি শেষ করে কিভাবে সিলিকন ভ্যালির প্রযুক্তি পেশার টানে থেকে গেলেন যুক্তরাষ্ট্রে তা জানান তিনি। সেই সঙ্গে প্রবাসী বাংলাদেশীরা কিভাবে নিজেদের সন্তানদের নিজের সংস্কৃতির সঙ্গে জড়িয়ে নেবার চেষ্টা করেন, তা নিয়ে নিয়েও কথা বলেন ড. ইফফাত কাজী।

গুগল, ইয়াহু, মাইক্রোসফট, ফেসবুক, টুইটার, ইবে, ওরাকল সহ সিলিকন ভ্যালীর বড় বড় প্রযুক্তি কোম্পানীতে বাংলাদেশীদের মেধা কাজে লাগছে এবং দিনে দিনে তা বাড়ছে।

নেট থেকে সংগৃহিত ও অনুবাদকৃত সংবাদ সমূহ অফিসে সাব-এডিটরগণ সম্পাদনা করে প্রকাশ করে থাকেন। এ জাতীয় সংবাদ গুলো ডেস্ক নিউজ হিসেবে প্রকাশিত হয়।

সর্বশেষ তালাশ

অপরাধ জগত